• মঙ্গলবার ২৩ এপ্রিল ২০২৪ ||

  • বৈশাখ ১০ ১৪৩১

  • || ১৩ শাওয়াল ১৪৪৫

মাদারীপুর দর্পন
ব্রেকিং:
দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষায় বাংলাদেশ সর্বদা প্রস্তুত : প্রধানমন্ত্রী দেশীয় খেলাকে সমান সুযোগ দিন: প্রধানমন্ত্রী খেলাধুলার মধ্য দিয়ে আমরা দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারি বঙ্গবন্ধুর আদর্শ নতুন প্রজন্মের কাছে তুলে ধরতে হবে: রাষ্ট্রপতি শারীরিক ও মানসিক বিকাশে খেলাধুলা গুরুত্বপূর্ণ: প্রধানমন্ত্রী বিএনপির বিরুদ্ধে কোনো রাজনৈতিক মামলা নেই: প্রধানমন্ত্রী স্বাস্থ্যসম্মত উপায়ে পশুপালন ও মাংস প্রক্রিয়াকরণের তাগিদ জাতির পিতা বেঁচে থাকলে বহু আগেই বাংলাদেশ আরও উন্নত হতো মধ্যপ্রাচ্যের অস্থিরতার প্রতি নজর রাখার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর প্রধানমন্ত্রী আজ প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ উদ্বোধন করবেন

শিবচরে পুলিশের অস্ত্র লুটের সাজাপ্রাপ্ত আসামি গ্রেপ্তার

মাদারীপুর দর্পন

প্রকাশিত: ৩১ মার্চ ২০২৪  

মাদারীপুর প্রতিনিধিঃ মাদারীপুরের শিবচরে প্রায় দুই যুগ পরে পুলিশের অস্ত্র লুট করার মামলায় সাজাপ্রাপ্ত এক আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শুক্রবার সন্ধ্যায় শিবচর উপজেলার নিলখী ইউনিয়নের চর কামারকান্দি এলাকা তোবারক শিকদারকে গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃত আসামির নাম তোবারক শিকদার (৪৫)। তিনি পূর্ব বাংলা সর্বহারা পার্টির আঞ্চলিক নেতা এবং ২০০০ সালে শিবচরের দত্তপাড়া পুলিশ ফাঁড়ি লুটের অন্যতম আসামি। তোবারক শিকদার শিবচর উপজেলার নিলখী ইউনিয়নের চর কামারকান্দি গ্রামের বেলায়েত শিকদারের ছেলে।

শিবচর থানা পুলিশের সূত্র জানায়, ২০০০ সালে দুপুরে শিবচর উপজেলার দত্তপাড়া পুলিশ ফাঁড়িতে ঢুকে পুলিশের অস্ত্র লুট করে নিয়ে পালিয়ে যায় পূর্ববাংলা সর্বহারা পার্টির সদস্যরা। এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে শিবচর থানায় একটি মামলা করে। মামলায় ১২ বছরের সাজা হয় তোবারকের। মামলার শুরু থেকেই পলাতক ছিল তোবারক। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ জানতে পারেন তোবারেক নিখলী ইউনিয়নে অবস্থান করছে। পরে  নিলখী পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের পরিদর্শক (আইসি) হরিদাস রায়ের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল চর কামারকান্দি এলাকার অভিযান চালায়। এ সময় একটি চরাঞ্চলে আত্মগোপণ করা অবস্থায় তোবারককে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

মাদারীপুরের শিবচর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সুব্রত গোলদার বলেন, দীর্ঘদিন পালিয়ে থাকার পর সাজাপ্রাপ্ত আসামি তোবারক শিকদার পুলিশের হাতে ধরা পড়ে। শনিবার দুপুরে আইনীপ্রক্রিয়া শেষে মাদারীপুরের আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে শিবচরসহ দেশের বিভিন্ন থানায় একাধিক মামলাও রয়েছে। শনিবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।