• সোমবার ২২ এপ্রিল ২০২৪ ||

  • বৈশাখ ৯ ১৪৩১

  • || ১২ শাওয়াল ১৪৪৫

মাদারীপুর দর্পন
ব্রেকিং:
দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষায় বাংলাদেশ সর্বদা প্রস্তুত : প্রধানমন্ত্রী দেশীয় খেলাকে সমান সুযোগ দিন: প্রধানমন্ত্রী খেলাধুলার মধ্য দিয়ে আমরা দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারি বঙ্গবন্ধুর আদর্শ নতুন প্রজন্মের কাছে তুলে ধরতে হবে: রাষ্ট্রপতি শারীরিক ও মানসিক বিকাশে খেলাধুলা গুরুত্বপূর্ণ: প্রধানমন্ত্রী বিএনপির বিরুদ্ধে কোনো রাজনৈতিক মামলা নেই: প্রধানমন্ত্রী স্বাস্থ্যসম্মত উপায়ে পশুপালন ও মাংস প্রক্রিয়াকরণের তাগিদ জাতির পিতা বেঁচে থাকলে বহু আগেই বাংলাদেশ আরও উন্নত হতো মধ্যপ্রাচ্যের অস্থিরতার প্রতি নজর রাখার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর প্রধানমন্ত্রী আজ প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ উদ্বোধন করবেন

গাজা উপত্যকায় ইসরায়েলি বিমান হামলা, ২০ ফিলিস্তিনি নিহত

মাদারীপুর দর্পন

প্রকাশিত: ৪ মার্চ ২০২৪  

উত্তর গাজা উপত্যকায় দুটি বাড়িতে ইসরায়েলি যুদ্ধবিমান থেকে বোমা হামলায় অন্তত ২০ জন নিহত হয়েছেন। ফিলিস্তিনের সরকারি বার্তা সংস্থা ওয়াফার বরাত দিয়ে রোববার (৩ মার্চ) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে তুরস্কের বার্তাসংস্থা আনাদোলু।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, গাজা শহরের উত্তরে জাবালিয়া শরণার্থী শিবির এবং সাফতাউই এলাকায় দুটি বাড়ি লক্ষ্য করে বিমান হামলা চালায় ইসরায়েল। বাড়ি দুটি ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়। এতে ২০ জন নিহত হন।  

চিকিৎসা সূত্রের বরাত দিয়ে ওয়াফ জানিয়েছে, মৃতদেহগুলো উত্তর গাজার কামাল আদওয়ান হাসপাতালে রাখা হয়েছে।

স্থানীয় স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, গাজা শহরের দক্ষিণে মানবিক সহায়তার অপেক্ষায় থাকা ফিলিস্তিনিদের ওপর বৃহস্পতিবার ইসরায়েলি বাহিনী গুলি চালালে অন্তত ১১৬ জন নিহত হয়।

গাজায় ইসরায়েলি হামলার ১৪৯তম দিন চলছে আছ। বর্বরোচিত এ হামলায় এখন পর্যন্ত অন্তত ৩০ হাজার ৪১০ ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছেন, যাদের বেশিরভাগই নারী ও শিশু। এ আগ্রাসনে আহতের সংখ্যা কমপক্ষে ৭১ হাজার ৭০০ জন।

গাজার বর্তমান পরিস্থিতি ভয়াবহ। ওই অঞ্চলের জনসংখ্যার ৮৫ শতাংশকে খাদ্য, বিশুদ্ধ পানি এবং ওষুধের তীব্র সংকটে মধ্যে দিয়ে অভ্যন্তরীণ বাস্তুচ্যুতির দিকে ঠেলে দিয়েছে এ যুদ্ধ।  

জাতিসংঘের মতে, শরণার্থী শিবির এলাকার ৬০ শতাংশ অবকাঠামো ক্ষতিগ্রস্ত বা ধ্বংস হয়ে গেছে।

আন্তর্জাতিক বিচার আদালতে ইসরায়েল এখন গণহত্যার দায়ে অভিযুক্ত। জানুয়ারিতে একটি অন্তর্বর্তীকালীন রায়ে তেল আবিবকে গণহত্যামূলক কর্মকাণ্ড বন্ধ করতে এবং গাজার বেসামরিক নাগরিকদের মানবিক সহায়তা প্রদানের নিশ্চয়তা দেওয়ার ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়।

কিন্তু জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক সব চাপ ও অনুরোধকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে ফিলিস্তিনে ধ্বংসযজ্ঞ চালিয়েই যাচ্ছে বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর ইসরায়েল।