• মঙ্গলবার ২৩ এপ্রিল ২০২৪ ||

  • বৈশাখ ১০ ১৪৩১

  • || ১৩ শাওয়াল ১৪৪৫

মাদারীপুর দর্পন
ব্রেকিং:
দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষায় বাংলাদেশ সর্বদা প্রস্তুত : প্রধানমন্ত্রী দেশীয় খেলাকে সমান সুযোগ দিন: প্রধানমন্ত্রী খেলাধুলার মধ্য দিয়ে আমরা দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারি বঙ্গবন্ধুর আদর্শ নতুন প্রজন্মের কাছে তুলে ধরতে হবে: রাষ্ট্রপতি শারীরিক ও মানসিক বিকাশে খেলাধুলা গুরুত্বপূর্ণ: প্রধানমন্ত্রী বিএনপির বিরুদ্ধে কোনো রাজনৈতিক মামলা নেই: প্রধানমন্ত্রী স্বাস্থ্যসম্মত উপায়ে পশুপালন ও মাংস প্রক্রিয়াকরণের তাগিদ জাতির পিতা বেঁচে থাকলে বহু আগেই বাংলাদেশ আরও উন্নত হতো মধ্যপ্রাচ্যের অস্থিরতার প্রতি নজর রাখার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর প্রধানমন্ত্রী আজ প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ উদ্বোধন করবেন

পাপীদের হাতে যখন রাষ্ট্র ছিল, সেসময় রাষ্ট্রের উন্নয়ন হয়নি

মাদারীপুর দর্পন

প্রকাশিত: ১২ মার্চ ২০২৪  

মাদারীপুর প্রতিনিধিঃ বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও  জাতীয় সংসদের খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি শাজাহান খান এমপি বলেন, পাপীদের হাতে যখন রাষ্ট্র ছিল, সেই পাপীদের সময় রাষ্ট্রের উন্নয়ন হয়নি। অর্থাৎ যারা ধর্ষক, জামাত রাজাকার,যারা খুন করেছে, ৩০ লক্ষ মানুষ হত্যা করেছে তারা যখন রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় ছিল এবং বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারকে যারা হত্যা করেছিল, তারা যখন রাষ্ট্রে ক্ষমতা ছিল এই রাষ্ট্রের উন্নয়ন হয়নি।

বিকালে মাদারীপুর শিল্পকলা একাডেমীতে মাদারীপুর জেলা প্রশাসনের সহযোগিতায় মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের আয়োজনে নতুন প্রজন্মকে মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় উদ্বুদ্ধকরণের লক্ষ্যে শিক্ষার্থীদেরকে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের যুদ্ধকালীন বীরত্বগাথা শোনানো অনুষ্ঠানে  সনদপত্র প্রদান শেষে প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন তিনি।
এসময় ৩শতাধিক শিক্ষার্থীদের সঠিক ইতিহাস শোনানোর জন্য প্রতিযোগিতায় অংশ গ্রহণ করেন এর মধ্যে বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার ও সনদপত্র প্রদান করা হয়।

মাদারীপুর জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মারুফুর রশিদ খানের সভাপতিত্বে আরও উপস্থিত ছিলেন বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও মুক্তিযুদ্ধ চেতনা  বাস্তবায়ন প্রকল্পের পরিচালক ড. মোহাম্মদ নুরুল আমিন, মাদারীপুর সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার শাহজাহান হাওলাদার, সাবেক পৌর মেয়র নূরে আলম বাবু চৌধুরী, সাবেক পৌর মেয়র ও মুক্তযুদ্ধকালীন খলিল বাহিনীর প্রধান বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ খলিলুর রহমান খান, মাদারীপুর অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটির) মোসা: তানিয়া ফেরদৌসসহ মুক্তিযোদ্ধা,শিক্ষক শিক্ষার্থীরা।