• শুক্রবার   ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||

  • আশ্বিন ২ ১৪২৮

  • || ০৯ সফর ১৪৪৩

মাদারীপুর দর্পন

রাজৈরে ৯ ডাকাত গ্রেপ্তার, অস্ত্র ও মাদক উদ্ধার

মাদারীপুর দর্পন

প্রকাশিত: ১ সেপ্টেম্বর ২০২১  

মাদারীপুর প্রতিনিধি:
মাদারীপুরের রাজৈরে ডাকাত দলের নয় সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এ সময় ডাকাতি হওয়া নগদ টাকা, দুটি পাইপ গান, ৪ রাউন্ড গুলি ও ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

মঙ্গলবার দুপুরে জেলা পুলিশ সুপার কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানায় পুলিশ সুপার গোলাম মোস্তফা রাসেল।

সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ সুপার জানায়,গত ১৫ আগস্ট রাজৈর উপজেলার গোয়ালবাথন গ্রামের ঠিকাদার কুদ্দুস মাতুব্বরের বাড়ির কলাসিপল গেটের তালা ভেঙ্গে ঘরের ভেতর প্রবেশ করে একদল মুখোশধারী ডাকাত। পরে বাড়ির লোকজনদের অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে নগদ দেড় লাখ টাকা, ১৪ ভরি স্বর্ণাংলকারসহ মূল্যবান জিনিসপত্র নিয়ে যায় ডাকাতরা। এই ঘটনায় রাজৈর থানায় অজ্ঞাতনামা আসামি করে মামলা দায়ের করে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার। পরে তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এআই মীর নাজমুল হোসেন ২১ আগস্ট রাজৈর থেকে ডাকাত দলের সদস্য মাফুজালকে (৩৫) গ্রেপ্তার করে। পরবর্তীতে আসামি মাফুজাল বিজ্ঞ আদালতে ডাকাতির ঘটনা স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। এ  সময় তিনি তার আরও ১১ জন সহযোগির নাম উল্লেখ করেন। এরপর জেলা ও পার্শ্ববর্তী জেলায় বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে মঙ্গলবার ভোর রাতে আরো ৮ জনকে গ্রেপ্তার করে রাজৈর থানা পুলিশ। এ সময় তাদের কাছ থেকে ডাকাতি হওয়া নগদ ৫ হাজার টাকা, দুটি পাইপ গান, ৪ রাউন্ড গুলি ও ১১০টি ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে। পরে তাদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন মাদারীপুরের মস্তফাপুর এলাকার লিটন হাওলাদার (৪০), গোপালগঞ্জের মুকসুদপুর এলাকার সাজ্জাদ শেখ (৩২), একই এলাকার চুন্নু মিয়া (৫১), গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার সুখদেব বিশ্বাস (৩২), ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলার মহেশ্বরদী চৌধূরীকান্দি গ্রামের মো. আলী শেখ (৩৭), একই উপজেলার পাতরাইল দিঘীর বাগবাড়ী গ্রামের মিঠু মাতুব্বর (৩৫)। বাকিদের নাম জানা যায়নি। 

পুলিশ সুপার গোলাম মোস্তফা রাসেল বলেন, ‘ডাকাতি ঘটনার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে মাফুজাল আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে। গ্রেপ্তারকৃত ডাকাতদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় ডাকাতি, অস্ত্র ও মাদকসহ ৮ থেকে ১০টি ডাকাতি মামলা রয়েছে। এই চক্রের সঙ্গে জড়িত বাকি সদস্যদেরও গ্রেপ্তার করা হবে।’