• মঙ্গলবার   ৩০ নভেম্বর ২০২১ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১৬ ১৪২৮

  • || ২৪ রবিউস সানি ১৪৪৩

মাদারীপুর দর্পন

সারাদেশে আন্তঃধর্মীয় সংলাপ বাড়ানোর আহ্বান ধর্ম প্রতিমন্ত্রীর

মাদারীপুর দর্পন

প্রকাশিত: ১৬ নভেম্বর ২০২১  

রাষ্ট্রের অসাম্প্রদায়িক বৈশিষ্ট্য সমুন্নত রাখতে প্রতিটি বিভাগ, জেলা, উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে আন্তঃধর্মীয় সংলাপ বাড়ানোর আহ্বান জানিয়েছেন ধর্ম প্রতিমন্ত্রী মো. ফরিদুল হক খান।

তিনি বলেছেন, বাংলাদেশ অসাম্প্রদায়িক রাষ্ট্র। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বাংলাদেশের সংবিধানে ধর্মনিরপেক্ষতা তথা অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশের মূলনীতি সন্নিবেশিত করে গেছেন। আন্তঃধর্মীয় সংলাপ বাড়ানোর মাধ্যমে সব সম্প্রদায়ের মানুষের মধ্যে আন্তঃধর্মীয় সম্পর্ক আরও সুদৃঢ় হবে।

সোমবার (১৫ নভেম্বর) দুপুরে নড়াইল জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে ধর্মবিষয়ক মন্ত্রণালয় পরিচালিত “ধর্মীয় সম্প্রীতি ও সচেতনতা বৃদ্ধিকরণ” শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় অনুষ্ঠিত ধর্মীয় সম্প্রীতি ও সচেতনতামূলক আন্তঃধর্মীয় সংলাপ/সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, ভবিষ্যতে কোনো অশুভ শক্তি যেন রাজনৈতিক হীনস্বার্থ চরিতার্থ করার উদ্দেশ্যে এদেশের সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির পরিবেশ বিনষ্ট করতে না পারে এবং দেশের মধ্যে দাঙ্গা-হাঙ্গামা সৃষ্টি করতে না পারে, এ বিষয়ে সব ধর্মীয় নেতাদের নিজ নিজ অবস্থান থেকে দায়িত্ব পালন করতে হবে। বিশেষ করে মসজিদের খতিব ও ইমামরা জুমার বয়ানে নিয়মিতভাবে এ বিষয়গুলো তুলে ধরতে পারেন।

তিনি বলেন, পবিত্র কোরআন ও মহানবী (সা.) এর জীবনী তথা মদিনা সনদ, মক্কা বিজয়ের ঘটনা এবং বিভিন্ন হাদিস থেকে আমরা অসাম্প্রদায়িক সমাজব্যবস্থার কথা জানতে পারি। বাংলাদেশের অসাম্প্রদায়িক সমাজ রক্ষায় আমাদের মহানবীর জীবন থেকে শিক্ষা নিয়ে অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশের উন্নয়ন অগ্রযাত্রার ধারা অব্যাহত রাখতে হবে।

নড়াইল জেলা প্রশাসক মো. হাবিবুর রহমানের সভাপতিত্বে সংলাপে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন নড়াইল জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট মো. সোহরাব হোসেন বিশ্বাস, পুলিশ সুপার প্রবীর কুমার কুন্ডু (মদন), নড়াইল সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নিজাম উদ্দিন খান নিলু, নড়াইল পৌরসভার মেয়র আঞ্জুমান আরা, ইসলামিক ফাউন্ডেশন খুলনা বিভাগীয় কার্যালয়ের পরিচালক একেএম ফজলুর রহমান।

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন, নড়াইল জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট সুবাস চন্দ্র বোস, বিশিষ্ট ইসলামিক আলোচক ড. একেএম আব্দুল মোমেন সিরাজী, বীর মুক্তিযোদ্ধা সাইফুর রহমান হিলু, নড়াইল জেলা ইমাম সমিতির সভাপতি আলহাজ্ব মাওলানা রশীদ আহমাদ, সাধারণ সম্পাদক মাওলানা বিল্লাল হোসাইন, নড়াইল প্রেসক্লাবের সভাপতি খায়রুল আরেফিন রানা, হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ নড়াইল জেলা শাখার সভাপতি মলয় কুমার নন্দী, বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ নড়াইল জেলা শাখার সভাপতি অশোক কুমার কুন্ডু ও নড়াইল ক্যাথলিক চার্চের ফাদার অমিয় মিস্ত্রী প্রমুখ।

সংলাপে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান, পৌরসভার মেয়র, নির্বাহী অফিসাররা, থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধি, সরকারি কর্মকর্তা, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর মুসলিম, হিন্দু, বৌদ্ধ ও খ্রিস্টান ধর্মীয় নেতারা, সাংবাদিক প্রতিনিধি, রাজনৈতিক নেতারা, শিক্ষক, সংস্কৃতিকর্মী, বীর মুক্তিযোদ্ধাসহ নড়াইল জেলার বিভিন্ন শ্রেণিপেশার প্রতিনিধিরা অংশ নিয়ে জেলাসহ সারাদেশের ধর্মীয় সম্প্রীতি সমুন্নত ও সুসংহত করতে বিভিন্ন সুপারিশ তুলে ধরেন।