• রোববার   ১১ এপ্রিল ২০২১ ||

  • চৈত্র ২৮ ১৪২৭

  • || ২৯ শা'বান ১৪৪২

মাদারীপুর দর্পন
ব্রেকিং:

পদ্মাসেতু পদ্মাপাড়ের বিনোদনের নতুন মাত্রা

মাদারীপুর দর্পন

প্রকাশিত: ৭ এপ্রিল ২০২১  

শিবচর প্রতিনিধিঃ পদ্মাসেতুকে বিনোদনের নতুন মাত্রা যোগ হয়েছে মাদারীপুর জেলার শিবচরের চরাঞ্চলে। দূর-দূরান্ত থেকে নানান বয়সী মানুষ আসছেন স্বপ্নের পদ্মাসেতু দেখতে। অনেকেই অবসর সময় কাটাতে ছুটে আসেন পদ্মাসেতু দেখতে। শুষ্ক মৌসুমে পদ্মায় জেগে উঠা চরে হেটে বেড়ানো, পানিতে পা ভিজানো কখনোবা পদ্মার টলমলে পানিতে ঝাঁপিয়ে পরতে দেখা যায় দূর-দূরান্ত থেকে আসা দর্শনার্থীদের। কাছ থেকে পদ্মাসেতু দেখার জন্যই তাদের ছুটে আসা।

সরেজমিনে পদ্মাসেতুর শিবচর ও জাজিরা এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, বিভিন্ন এলাকা থেকে নানা বয়সী মানুষ পদ্মাসেতু দেখতে এসেছেন। কাঁঠালবাড়ী ঘাট পেরিয়ে নদী শাসন বাঁধের উপর দিয়ে অনেকটাই সেতুর কাছাকাছি যাওয়া যায়। এই মৌসুমে নদীর চর জেগে উঠে বিভিন্ন স্থানে। সদ্য জেগে উঠা চরে দাঁড়িয়ে খুব কাছ থেকে পদ্মাসেতুর অবকাঠামো দেখা যায়। এ সকল চরে খালি পায়ে হেটে বেড়াতে দেখা গেছে বিভিন্ন জনকে। হাটু পানিতে নেমে ছবি তোলা, জলকেলির খুনসুটি আবার কাউকে পানিতে পা ভিজিয়ে পদ্মাসেতুর দিকে মুগ্ধ চোখে তাকিয়ে থাকতে দেখা গেছে। এছাড়াও নদী শাসন বাধের উপর হেটে হেটে নদী দেখা এবং স্থানীয় ছোট নৌকায় করে নদীতে ঘুরে বেড়াচ্ছে দর্শনার্থীরা।

জানতে চাইলে সুলতানা নামের এক গৃহবধু জানান,'গ্রামের বাড়িতে এলে পদ্মার পাড়ে আসা হয়। বিশেষ করে বাচ্চাদের নিয়ে পদ্মাসেতু দেখতেই ছুটে আসা। আর এই শুকনা মৌসুমে নদীর পাড়ে চর জাগে। চরে হেটে হেটে কাছ থেকেই সেতু দেখা যায়। এছাড়াও নদীর পাড়ের বাতাসে অন্য রকম এক প্রশান্তি। একঘেয়েমী দূর করতে কাছাকাছি ঘুরতে আসার মতো একটা জায়গা হয়েছে এখন।'

রাবেয়া আক্তার নামের এসএসসি পরীক্ষার্থী এ শিক্ষার্থী বলেন,'ফরিদপুরের ভাঙ্গা উপজেলার চুমুরদী এলাকায় বোনের বাড়িতে বেড়াতে এসেছি। সেখান থেকেই ঘুরতে আসা পদ্মার পাড়ে। আগে কখনো পদ্মানদীর কাছাকাছি আসা হয়নি। তাছাড়া সেতুও এতো কাছ থেকে দেখিনি। খুবই ভালো লাগছে এখানে ঘুরতে এসে।'

শিবচর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা(ইউএনও) মো. আসাদুজ্জামান জানান,' পদ্মাসেতুকে ঘিরে শিবচরের চরাঞ্চলে পর্যটন কেন্দ্র গড়ে তোলার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। ইতোপূর্বে জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ভ্রমনতরী (বড় নৌকা) নামানো হয়েছে পদ্মায়। যাতে করে নৌকা নিয়েও ঘুরতে পারে দর্শনার্থীরা। আগামীতেও পর্যটন ঘিরে নানা ধরনের পরিকল্পনা রয়েছে।'