রোববার   ১৭ নভেম্বর ২০১৯   অগ্রাহায়ণ ৩ ১৪২৬   ১৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

মাদারীপুর দর্পন
২৩২২

উদ্বোধনের দিনই বন্ধ হলো সৌদির ‘হালাল নাইটক্লাব’

প্রকাশিত: ১৭ জুন ২০১৯  

উদ্বোধনের দিনই বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে সৌদি আরবের ‘হালাল নাইটক্লাব’। আইনগত প্রক্রিয়া অনুসরণ না করায় এ ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির কর্তৃপক্ষ।

দুবাইভিত্তিক সংবাদমাধ্যম এরাবিয়ান বিজনেস এ খবর জানিয়ে বলছে, নাইটক্লাব ব্র্যান্ড ‘হোয়াইট’ জেদ্দায় তাদের একটি শাখা চালু করতে চেয়েছিল। এজন্য সব প্রস্তুতিও সম্পন্ন হয়। শেষ পর্যন্ত উদ্বোধনের দিন মার্কিন গায়ক নে-ইয়ো আসার আগেই এটি বন্ধ ঘোষণা করে সৌদি কর্তৃপক্ষ।

হালাল নাইটক্লাব চালু প্রসঙ্গে কর্তৃপক্ষ জানিয়েছিল, দুবাই ও বৈরুতের বিখ্যাত ব্র্যান্ড নাইটক্লাব হোয়াইটের কার্যক্রম শুরু হতে যাচ্ছে সৌদি আরবের জেদ্দায়। এতে বিলাসবহুল ক্যাফে এবং লাউঞ্জ থাকবে।

এই হালাল নাইটক্লাবে ওয়াটারফ্রন্ট থাকবে, এর সঙ্গে থাকবে বিশ্বের খ্যাতনামা মিউজিক গ্রুপের পরিবেশনা। ইলেক্ট্রনিক ডান্স মিউজিক, কমার্সিয়াল মিউজিক, আরএনবি এবং হিপহপ মিউজিক উপভোগ করা যাবে এখানে।

এই নাইটক্লাবের লাউঞ্জের একটি অংশে থাকবে ড্যান্স ফ্লোর। নারী পুরুষ সবার জন্যে এই ড্যান্স ফ্লোর উন্মুক্ত থাকবে। হোয়াইটের সব ধরনের সুযোগ সুবিধাই এখানে পাওয়া যাবে।

তবে এই নাইটক্লাবে মদ পাওয়া যাবে না। কারণ সৌদিতে মদ কেনাবেচা অবৈধ। কেউ যদি মদ কেনাবেচা করে তবে তাকে শাস্তি পেতে হয়।

হালাল নাইটক্লাব চালু হবে এমন খবর শোনার পর থেকে বিষয়টি নিয়ে ব্যাপক আলোচনা শুরু হয়। তখন অনেকে হাস্যরসে মেতে ওঠেন আর কেউবা ফেটে পড়েন ক্ষোভে। এ সময় নাইটক্লাবের বিরোধীরা বিভিন্নভাবে তাদের হতাশা প্রকাশ করেন। ফেসবুকে হ্যাশট্যাগ দিয়ে যা লিখেন তার অর্থ হলো- জেদ্দা বিচে আমি নিষিদ্ধ কার্যক্রম সমর্থন করি না।

এই বিভাগের আরো খবর